রাজস্থানে দর্জি খুনের জেরে ১৪৪ ধারা

0
63
রাজস্থানে দর্জি খুনের জেরে ১৪৪ ধারা
রাজস্থানে দর্জি খুনের জেরে ১৪৪ ধারা

ভারতের পশ্চিমাঞ্চলীয় রাজ্য রাজস্থানের উদয়পুরে এক হিন্দু দর্জিকে কুপিয়ে হত্যা করেছেন দুই মুসলমান যুবক। মহানবী হজরত মুহাম্মদকে (সা.) নিয়ে বিজেপির সাবেক মুখপাত্র নূপুর শর্মার সমর্থনে ফেসবুকে পোস্ট দেওয়ার জেরে এই হত্যাকাণ্ড ঘটে।

এ ঘটনায় উদয়পুরসহ গোটা রাজ্যে এক মাস ১৪৪ ধারা জারি ও ইন্টারনেট বন্ধ করে দেওয়া হয়েছে।

পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে হাজারো পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে। একই সঙ্গে ঘটনার দিন গত মঙ্গলবারই অভিযুক্ত দুই যুবককে পালিয়ে যাওয়ার সময় গ্রেপ্তার করেছে দেশটির পুলিশ। এ ঘটনায় নিন্দা জানিয়েছেন আজমির শরিফের প্রধান দেওয়ান জয়নুল আবেদীন আলী খান। তিনি বলেন, দেশে তালেবানি মানসিকতা মাথাচাড়া দিলে তা কখনও বরদাশত করা হবে না। কোনো ধর্মই মানবতার বিরুদ্ধে সহিংসতা সমর্থন করে না। এএফপি ও আলজাজিরা।

খবরে বলা হয়, অনলাইনে ছড়িয়ে পড়া ওই ভিডিওতে দেখা যায়, গোস মোহাম্মদ ও রিয়াজ আখতারি নামের দুই যুবক দর্জির দোকানে গ্রাহকের বেশে যান। পরে কানহাইয়া লাল নামের ওই দর্জি এক যুবকের শরীরের মাপ নেওয়ার সময় ধারালো ছুরি দিয়ে তাঁর শিরশ্ছেদের চেষ্টা করা হয়। অন্যজন ওই দৃশ্য মোবাইল ফোনে ভিডিও করেন।

এরপর তাঁরা সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে কানহাইয়াকে খুনের ভিডিও পোস্ট করে দায় স্বীকার করেন। এ সময় তাঁদের উল্লাস প্রকাশের পাশাপাশি পরবর্তী টার্গেট হিসেবে ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকেও হুমকি দিতে দেখা যায়। ভিডিওটি ভাইরাল হয়ে গেলে ধর্মীয় সহিংস পরিস্থিতি তৈরি হয়।