দ্বিতীয় সর্বোচ্চ নেতা তৈরির উদ্যোগ নিয়েছেন কিম

0
23
কিম
রাশিয়ায় পৌঁছেছেন কিম জং উন

উত্তর কোরিয়ার ক্ষমতাসীন রাজনৈতিক দল কিম জং উনের অধীনে দ্বিতীয় সর্বোচ্চ নেতার পদ তৈরির উদ্যোগ নিয়েছে। সর্বোচ্চ নেতা কিম অভ্যন্তরীণ রাজনীতি পূনর্গঠনের যে উদ্যোগ নিয়েছেন তার অংশ হিসেবেই এই পদক্ষেপ নেয়া হয়েছে।

উত্তর কোরিয়ার একটি অজ্ঞাত সূত্রের বরাত দিয়ে ইয়োনহ্যাপ জানায়, ‘প্রথম মহাসচিব’ নামে এই পদধারী বিভিন্ন বৈঠকে কিম জং উনের প্রতিনিধিত্ব করবেন।

গত জানুয়ারিতে ওয়ার্কাস পার্টি অব কোরিয়ার (ডব্লিউপিকে) কংগ্রেসে কিমকে সাধারণ মহাসচিব হিসেবে নির্বাচিত করা হয়। এর আগে এই পদ গ্রহণ করেছিলেন কিমের বাবা কিম জং ইল।

২০১২ থেকে ২০১৬ সাল পর্যন্ত কিম জং উন নিজেও ‘প্রথম মহাসচিব’ পদটি ব্যবহার করেছেন।

ওয়ার্কার্স পার্টিতে যে সাতটি মহাসচিব পদ রয়েছে, নতুন পদটি এগুলোর মধ্যে জ্যেষ্ঠতম হবে। পলিটব্যুরোর ৫ সদস্যবিশিষ্ট প্রেসিডিয়ামের অন্যতম সদস্য জো ইয়ং ওনকে ‘প্রথম মহাসচিব’ পদটি দেয়া হবে বলে ধারণা করা হচ্ছে।

জো কে কিমের অন্যতম ঘনিষ্ঠ সহযোগী বলে মনে করা হয়। তাকে প্রেসিডিয়ামে নিয়োগের বিষয়টি দেশটির রাষ্ট্রীয় সংবাদমাধ্যমে জানানো হয়েছিল।

পিতার সামরিক বাহিনী কেন্দ্রিক প্রশাসনের তুলনায় কিম রাজনৈতিক দলকে সরকারের আরও বড় ভূমিকায় রাখতে চান। কিম জং ইলের ‘রাজনীতিতে সবার আগে সামরিক বাহিনী’ নামক শব্দগুচ্ছটি ওয়ার্কার্স পার্টি আইনের মাধ্যমে বাদ দিয়েছে।

দক্ষিণ কোরিয়ার একীভূতকরণ মন্ত্রণালয় এক বিবৃতিতে বলেছে, জানুয়ারিতে কংগ্রেসের পর রাজনৈতিক দলের নতুন বিধানগুলো উত্তর কোরিয়ায় প্রচার করা হয়েছে।